রবিবার, মে ১৯, ২০২৪

মসজিদে রূপান্তরিত হওয়ার পর ১ বছরে আয়া সোফিয়া ভ্রমণ করেছে ৩০ লাখ মানুষ

ঐতাইহাসিক আয়া সোফিয়াকে পুনরায় মসজিদে রূপান্তরিত করার পর গত এক বছরে ৩০ লাখেরও বেশি মানুষ মসজিদটি দেখতে গিয়েছে বলে জানিয়েছে তুরস্কের সরকারী কর্মকর্তারা।

২০২০ সালে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগান হাজিয়া সোফিয়াকে মসজিদে রূপান্তরের ঘোষণা দেন। সে বছর ২৪ জুলাই আনুষ্ঠানিকভাবে জুমআর নামাজের মাধ্যমে এটিকে পুনরায় মসজিদে রূপান্তর করা হয়।

২০২০ সালে করোনাভাইরাস মহামারির কারণে বিভিন্ন বিধিনিষেধ ছিল। তারপরেও আয়া সোফিয়া মসজিদের জনপ্রিয়তা যেকোনো সময়ের থেকে সর্বাধিক। গত এক বছরে মসজিদটিতে ৩০ লাখের বেশি মানুষ ভ্রমণ করেছেন।

ঐতিহাসিক আয়া সোফিয়া মসজিদের পাশের অন্য আরেকটি ঐতিহাসিক মসজিদ ‘ব্লু মসজিদের’ মুফতি মুস্তফা ইয়াভুজ বলেন, তুরস্ক এবং বিশ্বের মানুষদের জন্য আয়া সোফিয়া অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ইবাদতের স্থান। এটা ইসলামি পরিচয়ের অংশ। বিভিন্ন দেশের ফ্লাইট নিষেধাজ্ঞা শেষ হলে আয়া সোফিয়া মসজিদে ভ্রমণকারীদের সংখ্যা ভবিষ্যতে আরও বৃদ্ধি পাবে।

বিদেশী দর্শনার্থীদের পাশাপাশি আয়া সোফিয়া মসজিদের প্রতি তুরস্কের নাগরিকরাও ব্যাপক আগ্রহ দেখাচ্ছেন। গত ১ জুলাইয়ে তুরস্কে কারফিউ প্রত্যাহারের পর অসংখ্য মানুষ প্রতিদিন মসজিদটিতে ভ্রমণ করছেন।

২০২০ সালের জুলাই থেকে ২০২১ সালের জুলাই পর্যন্ত আয়া সোফিয়া মসজিদে সপ্তাহের যেকোনো দিন অন্তত ৫ হাজার দর্শণার্থী ভ্রমণ করেছেন। আর সপ্তাহান্তিক দিনগুলোতে অর্থাৎ প্রত্যেক ছুটির দিনে অন্তত ১২ হাজার মানুষ আয়া সোফিয়া মসজিদ পরিদর্শন করেছেন।

সূত্র : ডেইলি সাবাহ

spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_img
spot_img
spot_img