বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২২

সিদ্ধিরগঞ্জে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষ, আহত ১৫

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে আদমজী ইপিজেডের মারুহিসা নামক একটি কারখানার লোড আনলোড ব্যবসা নিয়ে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে প্রায় ১৫ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে দুইজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) দুপুরে আদমজী ইপিজেডের পকেট গেটে বিহারী ক্যাম্প এলাকায় নাসিক ৬নং ওয়ার্ডের বর্তমান কাউন্সিলর মতিউর রহমান সমর্থিত মাহবুব-পানি আক্তার এবং একই ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর সিরাজ মন্ডল সমর্থিত সেলিম মজুমদার-কসাই বাবুর লোকজনের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়।

জানা যায়, দীর্ঘ দিন ধরে মাহবুব ও পানি আক্তার লোড-আনলোডের ব্যবসা করে আসছেন। গত ১৫ দিন আগে বাধা সৃষ্টি করে কসাই বাবু ও সেলিম মজুমদারের লোকজন। পকেট গেট দিয়ে পানি আক্তারের লোকজনকে ঢুকতে বাধা দিচ্ছে। এ ঘটনায় থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছিলেন মাহবুব।

এমন পরিস্থিতিতে আজ দুপুরে মাহবুব ও পানি আক্তারের লোকদের ইপিজেডে প্রবেশে বাধা দিলে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এসময় সিরাজ মন্ডলের সমর্থক সেলিম মজুমদার, কসাই বাবু, সোহেল, সজিব পাটোয়ারি, মাসুদ পাটোয়ারি, সফিউল, সম্রাট দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা করে। এতে মিজান (৩৫), হৃদয় (২৪), স্বপন (৩৮), স্বজল (২৮), কাউসার (২৯) ও হেলাল (৩০) আহত হয়। হৃদয়ের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাকে ঢাকা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মশিউর রহমান জানান, ব্যবসায়িক আধিপত্বকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ হয়েছে। সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। সংঘর্ষে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িতদের আটকের চেষ্টা চলছে।

spot_img
spot_img

সর্বশেষ

spot_img