বুধবার, ডিসেম্বর ৭, ২০২২

অস্ত্র-ইয়াবাসহ গ্রেফতার আওয়ামী লীগ নেতা

অস্ত্র ও ইয়াবাসহ আদাবর থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মনিরুজ্জামান মনিরকে (৫৫) গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

বৃহস্পতিবার (০৫ নভেম্বর) সন্ধ্যায় রাজধানীর আদাবরের ১/২ পিসিকালচার হাউজিং সোসাইটির বাসায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

র‌্যাব জানায়, তার বিরুদ্ধে জমি দখল, চাঁদাবাজি, বাড়ি দখল, ভাঙচুর, ভয় ভীতি দেখানোর অভিযোগে ৭৫টি মামলা ও জিডি রয়েছে। মোহাম্মদপুরের শেখেরটেক ও বেড়িবাঁধ সংলগ্ন ঢাকা উদ্যান, চন্দ্রিমা হাউজিং, তুরাগ হাউজিং, চাঁদ উদ্যান, একতা হাউজিং, শ্যামলী হাউজিং, রাজধানী হাউজিং, নবীনগর হাউজিং, গ্রিন সিটিসহ ১০টি হাউজিং প্রতিষ্ঠানের একাধিক প্লট দখলের অভিযোগ রয়েছে মনিরের বিরুদ্ধে।

র‌্যাবের মিডিয়া শাখার পরিচালক লে. কর্নেল আশিক বিল্লাহ বলেন, সন্ধ্যায় মনিরুজ্জামান মনিরের বাড়িতে র‌্যাব অভিযান চালায়। তার বাড়ি থেকে ১টি ওয়ান শুটার গান ও ৪শ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাব আরও জানায়, গত বছর ক্যাসিনো বিরোধী অভিযান শুরু হলে আমেরিকায় পালিয়ে যান মনির। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে গত কোরবানির ঈদে দেশে ফিরেন।

মনির বাংলাদেশ বিমানের জুনিয়ার পার্সার কাজী আশরাফ আল কাদের ও তার স্ত্রী ভিকারুননিসা নূন স্কুল এন্ড কলেজের সিনিয়র শিক্ষিকা খাদিজা আক্তারের ঢাকা উদ্যানের ডি ব্লকের সাড়ে ৬ কাঠার ৫৪ নম্বর প্লটের দোতালা বাড়িটি দখল করে নেয়।

আরেক ভুক্তভোগী অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মোস্তফা নাজিম, ঢাকা উদ্যানের সি-ব্লকে ১ নম্বর সড়কের একটি প্লটে চলতি বছরে বাড়ি নির্মাণ শুরু করলে মনির তার কাছে চাঁদা দাবি করে। মনিরের সন্ত্রাসী বাহিনীর হামলা ও লুটপাটের শিকার হন মোহাম্মদপুরের বছিলা রোডের আজহার এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী বরকত উল্লাহ। মইন উদ্দিন ও জহির উদ্দিনের মালিকানাধীন শ্যামলী হাউজিংয়ের দ্বিতীয় প্রকল্পের এইচ ব্লকের ১ নম্বর রোডের ১৩ নম্বর বাড়িটি মনিরের ক্যাডার বাহিনী দখল করে নেয়।

র‌্যাব জানায়, মনিরের চাঁদাবাজি ও দখলবাজিতে এলাকার মানুষের অভিযোগের প্রেক্ষিতে তার বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

spot_img
spot_img

সর্বশেষ

spot_img