শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ৩, ২০২৩

মোদি সরকারের বিরুদ্ধে হোয়াটসঅ্যাপের মামলা

ভারত সরকারের বিরুদ্ধে মামলা করেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম হোয়াটসঅ্যাপ।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটির গোপনীয়তা লঙ্ঘন হয় এমন আইন করার জন্য পদক্ষেপ নিয়েছে মোদি সরকার। এর প্রেক্ষিতে ওই মামলার মাধ্যমে সরকারকে এমন আইন বা রেজ্যুলেশন নেয়া থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ করেছে হোয়াটসঅ্যাপ।

ক্যালিফোর্নিয়াভিত্তিক ফেসবুক ইউনিট বলেছে, এই রেজ্যুলেশন বাস্তবায়ন হলে তাতে ব্যক্তিগত গোপনীয়তা সুরক্ষিত থাকবে না। এ বিষয়ে জানেন এমন ব্যক্তি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে এ তথ্য দিয়েছেন।

দিল্লি হাইকোর্টের কাছে এই মামলায় দাবি করা হয়েছে, ভারতের সংবিধানে ব্যক্তিগত গোপনীয়তার যে অধিকার আছে, প্রস্তাবিত নতুন আইনে তার লঙ্ঘন হয়। আদালত যেন এমন ঘোষণা দেন।

নতুন আইন অনুযায়ী, কর্তৃপক্ষ যখনই চাইবে, তখনই ‘ফার্স্ট অরিজিনেটর অব ইনফরমেশন’ দিতে বাধ্য থাকতে হবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোকে।

আইন অনুযায়ী, কোনো ব্যক্তির বিরুদ্ধে যদি অপরাধের বিশ্বাসযোগ্য অভিযোগ থাকে তাহলে তার মুখোশ উন্মোচন করতে হবে হোয়াটসঅ্যাপকে।

কিন্তু হোয়াটসঅ্যাপ বলছে, তারা শুধু নিজেরা এই চর্চা করতে পারে না। কারণ, ম্যাসেজগুলো এন্ড-টু-এন্ড এনক্রিপটেড।

spot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_img
spot_img