শুক্রবার, মে ২৭, ২০২২

টাক নিয়ে রসিকতা যৌনহয়রানির সামিল: ব্রিটিশ আদালত

মাথায় চুল না থাকায় পুরুষদের টাক নিয়ে রসিকতা করা যৌনহয়রানির সামিল বলে রায় দিয়েছেন ব্রিটেনের একটি আদালত। পুরুষদের টাক নিয়ে মন্তব্য করা আর নারীদের স্তন সম্পর্কে কথা বলা সমান বলে রায় দিয়েছেন আদালত।

সেই রায়ে বলা হয়, আদালত মনে করে নারীদের চেয়ে পুরুষদের মাথায় চুল না থাকার সমস্যা বেশি থাকায়, এ নিয়ে মন্তব্য করার মধ্যে লিঙ্গবৈষম্য রয়েছে।

শুক্রবার (১৩ মে) এ খবর জানা গেছে দ্য গার্ডিয়ানের এক প্রতিবেদনে।

সম্প্রতি টনি ফিন নামে এক প্রবীণ ইলেকট্রিশিয়ান ও তার সাবেক কর্মস্থলের মধ্যকার চলমান মামলায় এ রায় দিয়েছেন ব্রিটেনের কর্মচারী নিয়োগ ট্রাইব্যুনাল।

টনি ফিনের অভিযোগ, ২০১৯ সালে কর্মক্ষেত্রে তকাতর্কির সময় তাকে একাধিকবার “টেকো” বলে ডেকেছিলেন কারখানার (তিনি যেখানে কাজ করেন) সুপারভাইজার জেমি কিং। এতে অপমানিত বোধ করেন টনি এবং পরে আদালতের দ্বারস্থ হন।

সম্প্রতি ট্রাইব্যুনালের তিন সদস্যের প্যানেলে ওই মামলার শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। রায়ের শুনানিতে বিচারকরা বলেন, টনি ফিনের মর্যাদা লঙ্ঘন এবং তার জন্য একটি ভীতিকর, প্রতিকূল, অপমানজনক বা আপত্তিকর পরিবেশ তৈরির উদ্দেশ্যে ওই শব্দগুলো উচ্চারণ করেছিলেন জেমি কিং। তিনি স্বীকার করেছেন, তার উদ্দেশ্য ছিল টনিকে হুমকি দেওয়া ও তাকে অপমান করা। আমাদের বিচারে “টেকো” শব্দের সঙ্গে লিঙ্গবৈশিষ্ট্যের সম্পর্ক রয়েছে।

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img