মঙ্গলবার, মে ২৬, ২০২০

ভারতে মদের দোকান খুলতেই উপচে পড়া ভীড় , সামাল দিতে পুলিশ নাজেহাল

ঈদুল ফিতর উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা

পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে দেশবাসী ও বিশ্বের সকল মুসলমানদের শুভেচ্ছা ও ঈদ মোবারক জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ঈদুল ফিতর...

আজ ঈদ

আজ পবিত্র ঈদুল ফিতর। ৩০ দিন সিয়াম সাধনার পর আজ সারা দেশে উদযাপিত হচ্ছে মুসলিমদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদ উল ফিতর। ঈদ মানে...

ইনসাফের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আওয়ার ইসলাম সম্পাদকের শুভেচ্ছা বার্তা

হুমায়ুন আইয়ুব | সম্পাদক : আওয়ার ইসলাম বাংলাদেশের সংবাদপত্র একটি শিল্প। সেই শিল্পের নতুন পলক হলো দেশের ইসলামী ভাবধারার মিডিয়াগুলো। এই শিল্পের...

যুগ যুগ ধরে বেঁচে থাকুক ইনসাফ

মারুফ আল মাহমুদ | শিক্ষার্থী: জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা বাংলাদেশের ইসলামী ঘরনার প্রথম ও জনপ্রিয় অনলাইন পত্রিকা ইনসাফ হাঁটি-হাঁটি পা-পা করে অর্ধযুগ পেরিয়েছে।...

ইনসাফ আমাদের পরিচয় করিয়ে দিয়েছে সংবাদমাধ্যমের একটি নতুন ধারার সাথে

মহিউদ্দিন কাসেমী | লেখক, অনুবাদক ও অনলাইন এক্টিভিস্ট ইসলামী ঘরানার প্রথম পূর্ণাঙ্গ অনলাইন পত্রিকা ইনসাফের অর্থযুগ পূর্তি উপলক্ষে ইনসাফ পরিবারের জন্য রইলো...

বিশ্বব্যাপী ভয়ংকরভাবে হানা দিচ্ছে মহামারি করোনাভাইরাস। এতে ভারতে চল্লিশ হাজারেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতেই দেশটিতে মদের দোকান খোলার ব্যাপারে কেন্দ্রীয় সরকার ছাড় দিয়েছে সব জোনে। তার জেরেই সোমবার সকাল থেকে হাজারও মানুষের ভিড় শহরের বিভিন্ন মদের দোকানের সামনে। সেই ভিড় সামাল দিতে হিমশিম খেল পুলিশ। যেখানে সামাজিক দূরত্বের কোনো পাত্তা নেই। দেশের বিভিন্ন রাজ্যেও দেখা গেল একই রকম চিত্র।

সোমবার (০৪ মে) সকাল সাড়ে ৯টায় দেশটির কালীঘাট দমকলের পাশে মদের দোকানের শাটার তখনও খোলেনি, তার মধ্যেই দোকানের সামনে ফুটপাতে ৫০০ মানুষের লম্বা লাইন। প্রত্যেকের হাতে বিভিন্ন মাপের থলে। কয়েক মিনিট পরেই দোকানের তালা খুলে শাটার অর্ধেক তুললেন দোকানের এক কর্মী। সঙ্গে সঙ্গে ৫০০-৬০০ মানুষের লাইনটা এগিয়ে গেল। এক জনের ঘাড়ে হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন অন্যজন। সবাই চেষ্টা করছেন দোকানের কাউন্টারের কাছে আগে পৌঁছতে। আর তা নিয়েই শুরু হয় ঠেলাঠেলি। সেই ছবি দেখলে কেউ বলবে না, দেশ জুড়ে লকডাউন চলছে। কিছুক্ষণের মধ্যে সেখানে পুলিশ আসে। ওই ভিড় সামাল দিতে নাজেহাল হন তারাও। রীতিমতো লাঠি নিয়ে পুলিশ তাড়া করে উৎসাহী সুরাপায়ীদের। তাতেও ভাটা পড়েনি উৎসাহে। একদিকে তাড়া করলে সুরাপায়ীরা অন্যদিক দিয়ে তারা এসে হাজির হচ্ছেন দোকানের সামনে।

সোমবার সকাল থেকে একই ছবি দেখা গেল ভবানীপুরের যদুবাবুর বাজারের কাছে, মহিম হালদার স্ট্রিটের একটি মদের দোকানের সামনে। সব মিলিয়ে গোটা কলকাতার ছবিটাও একই রকম।

কেন্দ্রীয় সরকার মদের দোকান খোলার ব্যাপারে সবুজ সঙ্কেত দেওয়ার পর থেকেই এ রাজ্যেও শুরু হয়ে যায় জল্পনা। কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশিকা অনুসারে কনটেনমেন্ট এলাকা ছাড়া সব জায়গায় খোলা যাবে মদের দোকান। এর পর রাজ্যেও খুলতে চলেছে মদের দোকান— এমন গুঞ্জন শুরু হয় প্রশাসনেরও বিভিন্ন স্তরে। শনিবার বিকালেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায় একটি তালিকা। যেখানে রয়েছে কলকাতার ২২টি মদের দোকানের নাম। যেগুলো সোমবার থেকে খোলা হবে বলে উল্লেখ ছিল ভাইরাল হওয়া ওই মেসেজে। যদিও আবগারি কর্তাদের দাবি, এখনও রাজ্য সরকার কোনও বিজ্ঞপ্তি জারি করেনি। তবে তারা স্বীকার করেন কলকাতার কনটেনমেন্ট জোন বাদ দিয়ে ১৪টি মদের দোকানের তালিকা তাঁরা তৈরি করেছেন। যদি বিজ্ঞপ্তি জারি হয়,তাই সেই দোকানের মালিকদের বলা হয়েছে দোকান খোলার জন্য তৈরি থাকতে। পরে তৈরি হয় ২২টি দোকানের তালিকা।

তবে সোমবার সকাল থেকে শহর জুড়ে মদ কেনার এই ভিড় দেখে রীতিমতো আশঙ্কা প্রকাশ করেছে লালবাজার। সূত্রের খবর, কলকাতা পুলিশের পক্ষ থেকে নবান্নকেও জানানো হয়েছে, সামাজিক দূরত্ববিধি মনে চলার পরিকাঠামো তৈরি না করে মদের দোকান খুললে বড় ধরনের গোলযোগ হবে। আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে, খোলার এক ঘণ্টার মধ্যেই আপাতত ভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে অধিকাংশ মদের দোকান।

এ রাজ্যের বিভিন্ন জেলাতেও পরিস্থিতি কার্যত একই। অনেক জায়গায় গভীর রাত থেকে মদের দোকানের সামনে লাইন দিতে দেখা গিয়েছে সুরাপায়ীদের।

শুধু এ রাজ্যে নয়, মদের দোকান খুলতেই উৎসাহী সুরাপায়ীদের দীর্ঘ লাইন দেখা গিয়েছে দেশের বিভিন্ন রাজ্যে। মদের কেনার হিড়িকের জেরে সোশ্যাল ডিসট্যান্সিংও লাটে উঠেছে কোথাও কোথাও। কর্নাটকে সকাল থেকেই দেখা গিয়েছে মদের দোকানের সামনে দীর্ঘ লাইন। একই ছবি দিল্লি, ছত্তীসগঢ়ের-সহ বিভিন্ন জায়গায়। দীর্ঘ দিন পর মদের দোকান খোলা পেয়ে কলকাতার মতো হুড়োহুড়ো শুরু হয় দিল্লির বিভিন্ন দোকানের সামনে। সেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠি চালাতে হয় পুলিশকে। দিল্লির কাশ্মীরি গেটের সামনে একটি মদের দোকানের সামনে জনতার ভিড় সামলাতে লাঠি চালিয়েছে পুলিশ। পরে পরিস্থিতি সামাল দিতে দিল্লিতেও দোকান বন্ধ করে দিতে হয়।

সূত্র: আনন্দবাজার

সর্বশেষ

শুভ হোক ভার্চুয়াল আদালতের নবযাত্রা

করোনা ভাইরাসকালীন সংকটকে সামনে রেখে আজ থেকে দেশের বিচার বিভাগের নবযাত্রা শুরু হলো ভার্চুয়াল কোর্ট সিস্টেম দিয়ে। রাষ্ট্রপতি অধ্যাদেশ জারি করলেন। ভার্চুয়াল কোর্ট পরিচালিত হবে...

নোয়াখালীতে ওষুধের দোকানের ২ কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জের চৌমুহনী বাজারের একটি ওষুধের দোকানের দুই কর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ ঘটনায় তিনটি ওষুধের দোকান ও আক্রান্ত দুই কর্মচারীর বাড়ি লকডাউন করা...

ভারতে মদের দোকান খুলতেই উপচে পড়া ভীড় , সামাল দিতে পুলিশ নাজেহাল

বিশ্বব্যাপী ভয়ংকরভাবে হানা দিচ্ছে মহামারি করোনাভাইরাস। এতে ভারতে চল্লিশ হাজারেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতেই দেশটিতে মদের দোকান খোলার ব্যাপারে কেন্দ্রীয় সরকার ছাড়...

সংশ্লিষ্ট খবর

ফিলিস্তিনি হত্যা-নির্যাতন আড়াল করতে সাংবাদিকদের ওপর অত্যাচার অব্যাহত রেখেছে ইহুদীবাদী ইসরাইল

ফিলিস্তিনের জনপ্রিয় ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের মুখপাত্র ফুজি বারহুম বলেছেন, ফিলিস্তিনি হত্যা-নির্যাতন আড়াল করতে সাংবাদিকদের ওপর নির্যাতন-নিপীড়ন অব্যাহত রেখেছে ইহুদীদের অবৈধ রাষ্ট্র দখলদার ইসরাইল। রোববার...

এই প্রথম রমজানে মাইকে আজানের অনুমতি দিলো কানাডা সরকার

কানাডার ইতিহাসে প্রথমবারের মতো মসজিদে মাইক ব্যবহার করে আজান প্রচারের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। তবে এই অনুমতি শুধু রজমানের রমজান উপলক্ষে দেওয়া হয়েছে। রমজান শেষ হওয়ার...