সোমবার, অক্টোবর ১৮, ২০২১

সৌদিতে অর্ধশত ফিলিস্তিন ও জর্ডানের নাগরিকের সাজা; হামাসের ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া

অন্তত ৬৯ জন ফিলিস্তিনি এবং জর্ডানের নাগরিককে সাজা দিয়েছে সৌদি আরব। এ রায়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বিবৃতিতে দিয়েছে ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস।

রবিবার (৮ আগস্ট) সৌদি আদালত অভিযুক্ত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ২২ বছর পর্যন্ত বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডের ঘোষণা দেন।

২০১৮ সালে সৌদি থাকা ফিলিস্তিনি এবং বেশ কয়েকজন জর্ডানের নাগরিককে বন্দি করে সৌদি কর্তৃপক্ষ। তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ আনা হয়। ২০২০ সালে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস ওয়াচ-এইচআরডব্লিউ’র প্রতিবেদনে বলা হয়, একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে তারা আটক হয়। যদিও সন্ত্রাসী গোষ্ঠীটির নাম স্পষ্ট করেনি সৌদি সরকার।

সৌদিতে অবস্থান করা ফিলিস্তিনি ও জর্ডানের নাগরিকরা নানা সময় হয়রানির শিকার হয়ে আসছে। সম্প্রতি তা বেড়েছে বলে জানা গেছে।

২০১৯ সালে একাধিক ফিলিস্তিনিকে কারাগারে বন্দি করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদ আদালতে বিচারকাজ চলছে।কাতারভিত্তিক সংবামাধ্যমে বলা হয়েছে, সাজা দেওয়ার মধ্যে ফিলিস্তিনের হামাসের প্রবীণ সদস্য মোহাম্মদ আল-খুদারিকে ১৫ বছরের কারাদণ্ড প্রদান করেছেন আদালত।

ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ সংগঠন হামাসের সৌদি প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পালন করা মুহাম্মাদ আল-খুদারির বিরুদ্ধে রবিবার এ রায় ঘোষণা করেন আদালত। একইসঙ্গে খুদারির ছেলে হানি আল-খুদারিকেও তিন বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। রায়ে নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে হামাস।

যাদের বিরুদ্ধে সাজা ঘোষণা করা হয়েছে, আগামী ৪০ দিনের মধ্যে আপিলের সুযোগ পাবেন।

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img