মঙ্গলবার, নভেম্বর ৩০, ২০২১

ভারতকে শায়েস্তা করতে তিব্বতে অস্ত্র তৈরির হাব বানাচ্ছে চীন

ভারতকে শায়েস্তা করতে তিব্বতে বড় অস্ত্র তৈরির কারখানা বা মিলিটারি লজিস্টিক হাব তৈরি করছে চীন। এমনই উপগ্রহ চিত্র হাতে পেয়েছে ভারত। তিব্বতের জিগাটসে এই লজিস্টিক হাব তৈরি করা হচ্ছে। প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় আরও শক্তিবৃদ্ধি করতেই চীনের এই পদক্ষেপ বলে মনে করা হচ্ছে।

সোমবার (১১ জানুয়ারি) ভারতীয় কর্তৃপক্ষ এ উপগ্রহ চিত্র হাতে পেয়েছে বলে দাবি করেছে।

বিশেষজ্ঞদের দাবি যে ছবি ভারতের হাতে এসে পৌঁছেছে, তা সাম্প্রতিক সময়ের। ট্যুইটারে ওপেন সোর্স ইন্টিলিজেন্স অ্যানালিস্ট @detresfa প্রথম এই ছবি প্রকাশ করে। সেখানে দেখা গিয়েছে জিগাটসে বিমানবন্দরে অস্ত্র বহন করার পরিকাঠামো তৈরি করা হচ্ছে। যার সঙ্গে যুক্ত করা হচ্ছে লজিস্টিক হাবকে। এই পরিকাঠামো তৈরির কাজে যুক্ত রয়েছে চীনা সেনা।

ভূমি থেকে আকাশের মিসাইল নিক্ষেপণ কেন্দ্র তৈরি করা হচ্ছে তিব্বতের ওই এলাকায়। তৈরি হচ্ছে নতুন রেলওয়ে টানেল, সেনা ব্যারাক। পাতা হচ্ছে নতুন রেল লাইন। চিত্রে স্পষ্ট না হলেও জ্বালানি কেন্দ্র নির্মাণ কাজ নজরে এসেছে। এছাড়াও ওই এলাকায় মাটির তলায় অস্ত্র মজুত রাখার বিশেষ ছাউনি তৈরি হয়েছে মনে করা হচ্ছে।

তবে তিব্বতে বেশ কয়েক মাস ধরেই যুদ্ধপ্রস্তুতি ও সেনা সজ্জা চোখে পড়েছে। গালওয়ান উপত্যকায় ভারতীয় সেনার ওপর হামলা চালানোর পর পরই তিব্বতে সামরিক মহড়া চালায় চীন। জানা যায়, এই সামরিক মহড়ায় অংশ নেওয়ানোর জন্য চীনা সরকার সমগ্র দেশ থেকে অস্ত্র, সেনা, ট্যাঙ্ক, সাঁজোয়া যান ইত্যাদি সংগ্রহ করেছিল। এতে বেশ কয়েকটি নতুন অস্ত্রও সামিল করা হয়েছিল। যেমন টাইপ ১৫ লাইটওয়েট ট্যাঙ্কস, এইচজে -১০ অ্যান্টি-ট্যাঙ্ক মিসাইল ইত্যাদি।

তিব্বত মালভূমিতে এই মহড়া চালানো হয়। এই অঞ্চলের উচ্চতা ৪৭০০ মিটারেরও বেশি। কয়েক কিলোমিটার দূরে থাকা লক্ষ্যবস্তুগুলিতে ট্যাঙ্ক এবং ক্ষেপণাস্ত্র দ্বারা আক্রমণ করা হয়। এতে একাধিক রকেট লঞ্চার, হাউইটজার কামান এবং অ্যান্টিএয়ারক্রাফট সিস্টেমও ব্যবহার করা হয়। তবে এই নতুন পরিকাঠামোয় তৈরি হয়েছে পাঁচটি হেলিপোর্ট, পাঁচটি স্থায়ী এয়ার ডিফেন্স পজিশন ও তিনটি এয়ারবেস।

সূত্র: কলকাতা ২৪

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img