বুধবার, জুন ১৬, ২০২১

সালাম দিয়ে বক্তব্য শুরু করলেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী, নিন্দা জানালেন মুসলিম হত্যার

ইনসাফ | নাহিয়ান হাসান


কানাডায় গাড়িচাপা দিয়ে মুসলিম পরিবার হত্যাকাণ্ডের ঘটনাকে সন্ত্রাসী হামলা বলে অভিহিত করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো।

আসসালামু আলাইকুম বলে বক্তৃতা শুরু করার পর নৃশংস হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে ট্রুডো বলেন, এটি সাধারণ কোনো দুর্ঘটনা নয় বরং সন্ত্রাসী হামলা, যা আমাদের কমিউনিটিরই একজন বিদ্বেষবশত করেছেন।

মঙ্গলবার (৮ জুন) কানাডার হাউস অফ কমন্সে বক্তৃতাকালে এ কথা বলেন তিনি।

সন্ত্রাসী হামলায় গুরুতরভাবে আহত ৯ বছর বয়সী শিশুর ব্যাপারে ফ্রেঞ্চ ভাষায় তিনি বলেন, আমরা আশাকরি ছেলেটি খুব দ্রুতই সেরে ওঠবে। যদিও আমরা বুঝতে পারছি যে, সে দীর্ঘদিন এই কাপুরুষোচিত ইসলাম বিদ্বেষী সন্ত্রাসী হামলার জেরে নিজের অজান্তেই দুঃখ ও ক্ষোভ বয়ে বেড়াবে।

চরম উগ্র ও বর্ণবাদী গোষ্ঠীগুলোর বিরুদ্ধে যথাযথ পদক্ষেপ নেওয়ার মাধ্যমে কানাডা লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে বলে আশ্বাস দিয়ে ট্রুডো বলেন, এটি এখানে কানাডাতেই হচ্ছে। এটিকে থামাতে হবে।

নিউ ডেমোক্র্যাট পার্টির নেতা জাগমিত সিংহ বলেন, বাস্তবতা হলো সহিংসতা, স্থানীয় ও কাউন্টির জনসাধারণ হত্যার আখড়া হয়ে উঠছে কানাডা। এটি এমন একটি জায়গাতে পরিণত হয়েছে যেখানের মুসলিমরা নিরাপদ নয়।

জানা যায়, কানাডায় বসবাসরত পাকিস্তানি বংশোদ্ভুত মুসলিম পরিবারটি হাঁটার জন্য রাস্তায় বেড়িয়েছিলো। পরে দেশটির কেন্দ্রীয় প্রদেশ ওন্টারিওর ফুটপাতে একটি কালো পিকআপ ট্রাক চৌ-রাস্তার প্রতিবন্ধকের উপর দিয়ে চড়ে যায় এবং পরিবারটিকে সজোরে আঘাত করে।

সালমান আফজাল ৪৬ (বাবা), মেদিহা সালমান ৪৪(মা) , ইউমনা সালমান ১৫ (কন্যা), ৯ বছর বয়সী পুত্র ও সালমান আফজালের ৭৪ বছর বয়সী বৃদ্ধা মাকে নিয়ে গঠিত ৫ সদস্যের পরিবারটির ৪ জনই ঘটনাস্থলে নিহত হোন তবে পুত্র সন্তানটিকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

কানাডীয় গোয়েন্দা প্রধান পল ওয়েট বলছেন, হামলার পরপরই ঘটনাস্থল থেকে ৭ কিলোমিটার দূরে একটি শপিং মলে আর্মার ভেস্ট পরিহিত ২০ বছর বয়সী নাথানিয়েল ভেল্টম্যানকে তারা আটক করতে সক্ষম হয়েছেন।

দেশটির লন্ডন পুলিশ বলছে এটি একটি পূর্বপরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড, যা ঘৃণার বশবর্তী হয়ে করা হয়েছে।

সূত্র: আরব নিউজ।

spot_imgspot_img
spot_img

আরও