শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২২

তীব্র সমালোচনার মুখে মুসলিমদের কাছে ক্ষমা চাইলেন বার্বাডিয়ান গায়িকা রিয়ান্না

বার্বাডিয়ান গায়ক, গীতিকার, এবং অভিনেত্রী রিয়ান্নার একটি বিতর্কিত গান ব্যাপক সমালোচনা সৃষ্টি হয়েছে।

এতে ইসলামের পবিত্র হাদিস জুড়ে দেয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন মুসলমানরা।

এজন্য মুসলিম সম্প্রদায়ের কাছে আন্তরিকভাবে ক্ষমা চেয়েছেন তিনি।

বারবাডোজের ৩২ বছর বয়সী এই গায়িকার ‘স্যাভেজ এক্স ফেন্টি’ শীর্ষক ফ্যাশন শো গত ২ অক্টোবর অ্যামাজন প্রাইমে মুক্তি পায়। বিভিন্ন বয়সী নারী-পুরুষ ও সংখ্যালঘু মডেলদের উপস্থাপন করায় অনুষ্ঠানটি প্রশংসিত হয়েছে। এর পরেই আসতে থাকে সমালোচনার তীর। অনুষ্ঠানের একটি অংশ নিয়ে দর্শকরা আপত্তি তোলে। এতে অন্তর্বাস পরে মডেলরা একটি গানের তালে নেচেছেন। অডিওতে শোনা যাচ্ছিল, কেউ একজন মহানবীর (সাঃ) হাদিস পড়ছেন।

ইনস্টাগ্রাম স্টোরিসে ৬ অক্টোবর রিয়ান্না দাবি করেন, ভুলটি অনিচ্ছাকৃত। তিনি বলেন, ‘অজান্তে ঘটে যাওয়া বিরাট ভুল ধরিয়ে দেওয়ার জন্য মুসলিম সম্প্রদায়কে ধন্যবাদ জানাতে চাই। এমন অসতর্কতার কারণে আপনাদের কাছে ক্ষমা চাই। আমরা বুঝতে পেরেছি, অনেক মুসলিম ভাইবোনের অনুভূতিতে আঘাত লেগেছে। এ কারণে আমি খুবই মর্মাহত।’

রিয়ান্না যোগ করেছেন, ‘সৃষ্টিকর্তা বা কোনও ধর্মকে আমি ব্যক্তিগতভাবে কখনও অসম্মান করিনি। আমাদের ফ্যাশন শোতে এমন গান ব্যবহার করে সম্পূর্ণ দায়িত্বজ্ঞানহীনতার পরিচয় দিয়েছি। কথা দিচ্ছি, আগামীতে আর কখনও এমন কিছু ঘটবে না। আপনারা বিষয়টি বুঝে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখলে স্বস্তি পাবো।’

‘স্যাভেজ এক্স ফেন্টি’ ফ্যাশন শোতে ব্যবহৃত ‘ডুম’ শিরোনামের গানে কেয়ামত ও হাশরের ময়দানে বিচারকার্য বিষয়ক হাদিস ব্যবহার হয়েছে। এ কারণে টুইটারে সমালোচনার ঝড় ওঠে। ক্ষোভ প্রকাশ করেন অসংখ্য মুসলিম।

‘ডুম’ গানের লন্ডন ভিত্তিক প্রযোজক কুকু ক্লোয়ি সমালোচিত হওয়ায় ক্ষমা চেয়েছেন টুইটারে। একইসঙ্গে সব প্ল্যাটফর্ম থেকে গানটি সরিয়ে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি। তার কথায়, ‘যথাযথভাবে না জেনে এসব শব্দ ব্যবহারের দায় মাথা পেতে নিচ্ছি।’

এবারই প্রথম নয়, ইসলাম নিয়ে আগেও বিতর্কে জড়িয়েছেন রিয়ান্না। ২০১৩ সালে আবুধাবিতে আপত্তিকর ছবি তোলার কারণে একটি মসজিদ থেকে চলে যেতে বলা হয় তাকে।

সূত্র: বিবিসি

spot_img
spot_img

সর্বশেষ

spot_img