রবিবার, আগস্ট ১, ২০২১

ইসরাইলের হাতে ফিলিস্তিনী শিশু হত্যার ঘটনায় ইইউ ও জাতিসংঘের তদন্তের দাবি

ইনসাফ | নাহিয়ান হাসান


ফিলিস্তিনের আল মুঘায়ির গ্রামের ১৩ বছর বয়সী আলী আয়মান আবু-আলায়া নামী এক বালককে গুলি করে শহীদ করেছে ইহুদিবাদী সন্ত্রাসীদের অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইল। এ হত্যাকাণ্ডের একদিন পর শনিবার (৫ ডিসেম্বর) এক বিবৃতিতে ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে সুষ্ঠভাবে হত্যার তদন্তের আহবান জানিয়েছেন ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ইইউর একজন সদস্য জাতিসংঘ।

শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) আল মুঘায়ির গ্রামে ইহুদিবাদী ইসরাইলের অবৈধ দখল বিরোধী আন্দোলনে এই মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে।

ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায়, ঘটনার পরপরই মারাত্মকভাবে আহত হওয়া আলী আয়মানকে রামাল্লাহর একটি হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু, শত চেষ্টার পরও তাকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

অপরদিকে শনিবার (৫ ডিসেম্বর) ইহুদিবাদী ইসরাইল কর্তৃক ফিলিস্তিনি শিশু হত্যার তীব্র নিন্দা জানিয়ে সুষ্ঠভাবে এই হত্যার তদন্তের আহবান জানিয়েছেন ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ইইউর একজন সদস্য।

ফিলিস্তিন বিষয়ক ইইউর সেই সদস্য বলেন, ইসরাইলের সেনা কর্তৃক আর কতো শিশু নিগৃহীত, নির্যাতিত ও হত্যার শিকার হবে? অথচ, আন্তর্জাতিক আইনের আওতায় শিশুদের বিশেষ নিরাপত্তা দেওয়ার দিকনির্দেশনা দেওয়া রয়েছে!ইহুদিবাদী ইসরাইলের সরকারকে অবশ্যই এর সুষ্ঠ তদন্ত করে দোষীদের বিচারের আওতায় আনতে হবে।

সর্বশেষ ইইউর সেই প্রতিনিধি বলেন, যদি দোষীদের বিচারের আওতায় এনে উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হয়, তবে সেটিই হতে পারে শিশুটির বেদনাহত পরিবারের জন্য আন্তরিক সমবেদনা।

এছাড়া, জাতিসংঘের মধ্যপ্রাচ্য শান্তি প্রক্রিয়ার বিশেষ সমন্বয়কারী নিকোলাই ম্লাদিনোভও ইহুদিবাদী ইসরাইলের অবৈধ কর্মকাণ্ড ও শিশু হত্যার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন এবং অতিদ্রুত শিশু হত্যার সুষ্ঠ তদন্তের দাবি জানিয়েছে।

তাছাড়া ইহুদিবাদী সন্ত্রাসীদের অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলকে সতর্ক করে দিয়ে তিনি বলেন, শিশুদের বিশেষ নিরাপত্তা দিতে আন্তর্জাতিক আইন রয়েছে। সুতরাং শিশুদের সহিংসতা থেকে দূরে রাখুন।

সূত্র: ডাব্লিউএএফএ

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ