মঙ্গলবার, মে ২৪, ২০২২

আফগান থেকে সেনা প্রত্যাহারে সম্মতি হওয়ায় বাইডেনের প্রশংসা করলেন ট্রাম্প

আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার বিষয়ে আমেরিকার নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন সম্মতি হওয়ায় তার প্রশংসা করেছেন দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

গত রোববার (১৮ এপ্রিল) এক বিবৃতিতে ট্রাম্প আফগান বিষয়ে বাইডেন এর প্রশংসা করেন।

বিজনেস ইনসাইডার এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, ট্রাম্প বাইডেনের সিদ্ধান্তের প্রশংসা করেছেন, তবে তিনি ১১ ই সেপ্টেম্বর প্রতীকী সময়ের আগে সেনা সরিয়ে নেওয়ার জন্য প্রেসিডেন্ট বাইডেন এর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

ট্রাম্প বলেন, আফগানিস্তান থেকে বেরিয়ে আসা একটি চমৎকার এবং ইতিবাচক ব্যাপার। আমি পয়লা মে সেনা প্রত্যাহারের পরিকল্পনা করেছিলাম এবং আমাদের যতটা সম্ভব সেই সময়ের কাছাকাছি থাকা উচিত।

নিউইয়র্ক টাইমস এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আফগানিস্তানে এখনো প্রায় সাড়ে তিন হাজার মার্কিন সেনা মোতায়েন রয়েছে।

সম্প্রতি আমেরিকার প্রেসিডেন্ট বাইডেন ১১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে সব মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের ঘোষণা দিয়ে বলেন, আমরা আফগান পরিস্থিতি নিয়ে একটি আদর্শ অবস্থানে পৌঁছাব এই ভেবে সেনা প্রত্যাহারের সময় বারবার পিছিয়ে দিতে পারি না। আমি হলাম চতুর্থ মার্কিন প্রেসিডেন্ট, যাকে আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্রের সেনা নিয়ে কথা বলতে হচ্ছে। আমি এই দায়িত্ব পঞ্চম কারো জন্য রেখে যেতে চাই না।

উল্লেখ্য, ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বর টুইন টাওয়ারে হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে আফগানিস্তানে সামরিক আগ্রাসন চালায় আমেরিকা ও তার মিত্র শক্তি ন্যাটো জোট। আমেরিকার জন্য আফগানিস্তান ছিল তার সবচেয়ে বেশি দিন স্থায়ী সঙ্ঘাত। আমেরিকা বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার ব্যয় করেছে, তাদের ২,৪০০-এর বেশি সৈন্যকে হারিয়েছে। ২০ বছর কেটে গেছে। কিন্তু এখনো তালেবান তাদের লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। আর এ লড়ায়ে মার্কিন শক্তির উপর তালেবান নিজেদেরকে বিজয়ী মনে করছে। দীর্ঘ ২০টি বছরের লড়াইয়ে তাদের একটুও ফ্যাকাসে হয়নি ইসলামী ইমারাত আফগানিস্তানের স্বপ্ন দেখা।

গত বছরের ২৯ ফেব্রুয়ারি তালেবানের সাথে এক ঐতিহাসিক চুক্তি সই করে বিশ্বের সুপার পাওয়ার আমেরিকা। ওই চুক্তিতে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন নেতৃত্বাধীন পশ্চিমা সেনা প্রত্যাহারের কথা বলা হলেও এখন পর্যন্ত সে প্রতিশ্রুতি পূরণ করেনি পেন্টাগন। চুক্তি অনুযায়ী আগামী ১ মে’র মধ্যে আফগান থেকে সকল মার্কিন সৈন্য প্রত্যাহার করার কথা রয়েছে। তবে খোদ আমেরিকাই তালেবানের সাথে স্বাক্ষরিত চুক্তি রক্ষা করছে না।

১ মে’র আগের আগে প্রত্যাহার না করে চলতি বছরের ১১ সেপ্টেম্বর সেনা প্রত্যাহারের কথা বলছে আমেরিকার জো বাইডেন প্রশাসন। এদিকে আমেরিকার পাশাপাশি আফগান থেকে নিজেদের সেনাদের ফিরিয়ে নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে ন্যাটো জোট।

২০টি বছর পশ্চিমা শক্তির বিরুদ্ধে লড়াই করে একটুও জোড় কমেনি তালেবানদের। বর্তমানে আফগানিস্তানের অধিকাংশ শহর ও এলাকা তাদের নিয়ন্ত্রণে। পশ্চিমা শক্তির বিদায়ের সাথে সাথে তারা আফগানের ক্ষমতায় বসার স্বপ্ন দেখছে।

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img