‘জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস’ পালন করছে বিএনপি

আজ ৭ নভেম্বর। বিএনপি এই দিনটিকে ‘জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস’ হিসেবে পালন করে আসছে।

দিবসটি উপলক্ষে দলটি দিনব্যাপী কর্মসূচি ঘোষণা করেছে।

কর্মসূচির অংশ হিসেবে আজ শনিবার ভোর ৬টায় নয়াপল্টন কেন্দ্রীয় কার্যালয়সহ সারা দেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় প্রতাকা উত্তোলন করা হবে। আর করোনা পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বেলা ১১টায় রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের কবরে শ্রদ্ধা জানাবেন নেতাকর্মীরা। এরপর বিকেল ৩টায় ভার্চুয়াল আলোচনা সভা হবে।

গত বৃহস্পতিবার দলের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য দিয়ে জেলা-উপজেলা ও মহানগর বিএনপিকে নিজ সুবিধা অনুযায়ী কর্মসূচি পালন করতে বলা হয়। দিবসটি উপলক্ষে গণমাধ্যমে বাণী দিয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বাণীতে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘৭ নভেম্বরের চেতনা হচ্ছে বহুদলীয় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করা। যে চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে ১৯৭৫ সালে আমরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছিলাম, একই চেতনা বুকে ধারণ করে চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা ও স্বাধীনতা রক্ষায় আমাদের জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।’

এদিকে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) ৭ নভেম্বরকে ‘সিপাহি-জনতার অভ্যুত্থান দিবস’ হিসেবে পালন করে। দলটির নেতারা মনে করেন, ‘জেনারেল জিয়ার বিশ্বাসঘাতকতায় দিবসটি কালিমালিপ্ত হয়েছে।’ অন্যদিকে আওয়ামী লীগ দিনটিকে ‘মুক্তিযোদ্ধা সৈনিক হত্যা দিবস’ অভিহিত করলেও কোনো কর্মসূচি পালন করে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *