বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২১

ভারত সীমান্তের কাছে চীনের দূরপাল্লার মহড়া; অংশ নিয়েছে টাইপ-১৫ ট্যাঙ্ক

চীনের পিপলস লিবারেশান আর্মির (পিএলএ) তিব্বত মিলিটারি কমান্ড সম্প্রতি ভারি সরঞ্জামাদি নিয়ে দূরপাল্লার মহড়া চালিয়েছে। মহড়ায় কয়েক ডজন টাইপ ১৫ হালকা ট্যাঙ্ক এবং বিভিন্ন ধরণের পদাতিক ফাইটিং যান ও ট্রাক অংশ নিয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, এই মহড়ায় উচ্চ সীমান্ত এলাকায় পিএলএ’র দ্রুত সরঞ্জামাদি মোতায়েনের সক্ষমতা ফুটে উঠেছে।

পিএলএ’র তিব্বত মিলিটারি কমান্ডের সাথে সংশ্লিষ্ট একটি সমন্বিত সশস্ত্র ব্রিগেড সম্প্রতি রেলওয়ে এবং মোটরওয়ের মাধ্যমে দিনে ও রাতে মিলিয়ে দূরপাল্লার মহড়া চালিয়েছে, যেখানে ৪০০০ মিটারেরও বেশি উচ্চতায় ভারি সরঞ্জামাদি পরিবহন করা হয়। পিএলএ’র সাথে সংশ্লিষ্ট একটি সংবাদ ওয়েবসাইটের একটি রিপোর্টে এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছে।

রিপোর্টে বলা হয়েছে, মহড়ায় অংশ নেয়া অধিকাংশ ভারি সরঞ্জাম ও অস্ত্র সম্প্রতি বাহিনীতে যুক্ত করা হয়েছে।

সামরিক পর্যবেক্ষকরা বলেছেন, মহড়ায় অংশ নেয়া ভারি সাঁজোয়া যানবাহনের সংখ্যা অনেক। রিপোর্টের একটি ভিডিওতে প্রায় ৩০টি টাইপ ১৫ হালকা ট্যাঙ্ক দেখা গেছে। সেই সাথে পদাতিক ফাইটিং যানবাহন এবং ট্রাকও দেখা গেছে অনেক।

চীনের একজন সামরিক বিশেষজ্ঞ বৃহস্পতিবার গ্লোবাল টাইমসকে বলেন, এই মহড়ার মাধ্যমে পিএলএ আবারও দেখালো যে, উচ্চ এলাকার মালভূমি অঞ্চলে বিপুল সংখ্যক ভারি সরঞ্জামাদি পরিবহনের সক্ষমতা তাদের রয়েছে। এবং এটা তারা স্বল্প সময়েই বিভিন্ন পরিবহন ব্যবস্থাকে ব্যবহার করে করতে পারে।

ওই বিশেষজ্ঞ বলেন, কয়েক ডজন ট্যাঙ্ক, ফাইটিং যান, আক্রমণকারী যানবাহিন, ট্রাক-ভিত্তিক কামান এবং সুসজ্জিত পদাতিক সেনারা যে কোন বড় এলাকার কর্তৃত্ব নিতে পারে, সেটাকে নিয়ন্ত্রণ এবং তার সুরক্ষা করতে পারে, বিশেষ করে শত্রুপক্ষ যখন ভারি অস্ত্র ও সরঞ্জামে সুসজ্জিত থাকে না, অথবা কঠিন আবহাওয়ায় ক্লান্ত হয়ে পড়ে।

৩০ টন শ্রেণীর টাইপ ১৫ ট্যাঙ্কগুলো পিএলএ’র বহরে যুক্ত হয়েছে ২০১৮ সালে। বিশ্বের অধিকাংশ মেইন ব্যাটল ট্যাঙ্কের চেয়ে এগুলো হালকা। যে কোন ভারি ট্যাঙ্ক মালভূমি এলাকায় অক্সিজেন স্বল্পতার কারণে ইঞ্জিন নিয়ে সমস্যায় পড়তে পারে। অন্যদিকে এর চেয়ে হালকা যে কোন অস্ত্র মালভূমি এলাকাতে টাইপ ১৫ ট্যাঙ্কের জন্য কোন হুমকি সৃষ্টি করতে পারবে না বলে জানিয়েছেন বিশ্লেষকরা।

সম্প্রতি চীন ও ভারতের মধ্যে গঠনমূলক ও ইতিবাচক আলোচনা হওয়ার পর দুই দেশের মধ্যে বিদ্যমান অচলাবস্থার কোন উন্নতি হয়নি বলে বুধবার জানিয়েছে ভারতীয় মিডিয়া এনডিটিভি।

সূত্র: সাউথ এশিয়ান মনিটর ও গ্লোবাল টাইমস

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img