ভারত-চীন সংঘাতের সুযোগ নিতে পারে অন্য দেশ: রাশিয়ার সতর্কবার্তা

ভারত-চীনের সংঘাতকে হাতিয়ার করে সুবিধা নিতে পারে তৃতীয় কোনও দেশ। দুই দেশের সংঘাতের জেরে ইউরেশিয়া তথা গোটা বিশ্বে অস্থিতাবস্থার পরিবেশ তৈরি করতে পারে। সেই সুযোগে অন্য দেশ ফায়দা লুটতে পারে বলে সতর্ক করল রাশিয়া।

এক মিডিয়া ব্রিফিংয়ে রাশিয়ার ডেপুটি চিফ অব মিশন রোমান বাবুশকিন বলেছেন, ভারত-চীনের মতো এশিয়ার দুই শক্তিধর দেশের মধ্যে সীমান্ত বিবাদ নিয়ে উদ্বিগ্ন রাশিয়া। আলোচনার মাধ্যমে সমস্যা সমাধান করা উচিত বলে মনে করছে পুতিনের দেশ।

প্রসঙ্গত, ভারত ও চীন দুই দেশই স্কো এবং ব্রিকস গ্রুপের সদস্য। বাবুশকিন বলেছেন, সহযোগিতার পরিবেশ তৈরি এবং দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের উন্নতির জন্য আলোচনাই একমাত্র পথ। তার মতে, “এটা পরিষ্কার যে, বিশ্বে অস্থির পরিস্থিতি এবং অনিশ্চয়তার জন্য ভারত ও চীনের মধ্যে সংঘাত আঞ্চলিক স্থিতাবস্থায় প্রভাব ফেলতে পারে। আর সেটার সুযোগ নিতে পারে তৃতীয় কোনও দেশ।”

বলা বাহুল্য এই উক্তির মধ্যে দিয়ে তিনি ইঙ্গিত করেছেন আমেরিকার দিকে। সম্প্রতি মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও ভারত সফরে এসে নয়াদিল্লি-বেইজিংয়ের সম্পর্ক নিয়ে তাৎপর্যপূর্ণ মন্তব্য করেছেন। লাদাখ বিবাদ নিয়েও চীনকে পরোক্ষভাবে কটাক্ষ করেছেন। ভারতের বন্ধু দেশ রাশিয়া বিষয়টি বেশ গুরুত্ব দিয়ে দেখছে। বিশ্বের দুই মহাশক্তিধর দেশ আমেরিকা-রাশিয়ার ঠান্ডা লড়াই কার না জানা!

দুই দেশের সংঘাত নিয়ে রাশিয়া চিন্তিত বলে জানিয়েছেন পুতিনের ওই কর্মকর্তা।

তিনি বলেছেন, “দুই দেশই বিশ্বের এবং যথেষ্ট দায়িত্ববান প্রতিবেশী দেশ। আর্থিক এবং প্রতিরক্ষার ক্ষেত্রে ভারত-চীনের গুরুত্ব অপরিসীম।”

সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *