শুক্রবার, অক্টোবর ২২, ২০২১

সেনা হারিয়ে দিশেহারা ভারত তলব করলো পাক হাইকমিশনের ‘চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার’কে

জম্মু-কাশ্মীর সীমান্তে পাকিস্তানি বাহিনীর গুলিবর্ষণে ক্ষয়ক্ষতি জনিত কারণে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে ভারত।

শনিবার নয়াদিল্লিতে পাক হাইকমিশনের ‘চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার’ জাভেদ আলিকে তলব করে ওই ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছে সাউথ ব্লক।

শনিবার সন্ধ্যায় ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জারি করা এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘নিরপরাধ ভারতীয় নাগরিকদের পাকিস্তানি সেনার এ ভাবে টার্গেট করাকে কঠোরতম ভাষায় নিন্দা করছে ভারত। এটা আরও জঘন্য যে, এ দেশের এই উৎসবের মরসুমকে শান্তি বিঘ্নিত করা এবং জম্মু-কাশ্মীরে সহিংসতা ছড়ানোর জন্য বেছে নিয়েছে পাকিস্তান। ভারতের বিরুদ্ধে আন্তঃসীমান্ত সন্ত্রাস অব্যাহত রাখা এবং সন্ত্রাসী অনুপ্রবেশে পাকিস্তানের ধারাবাহিক মদত দেওয়াকেও তীব্র নিন্দা করা হচ্ছে। একইসঙ্গে, পাকিস্তানকে আরও একবার মনে করিয়ে দেওয়া হয়েছে যে, ভারতের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদে নিজেদের ভূখণ্ডকে ব্যবহার করতে না-দেওয়ার প্রতিশ্রুতি যেন তারা মেনে চলে।’

শুক্রবার পাকিস্তানি বাহিনী যুদ্ধবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করে বিভিন্ন সেক্টরে ব্যাপকভাবে ছোট অস্ত্রের সাহায্যে এলোপাথাড়ি গুলিবর্ষণের পাশাপাশি মর্টার হামলা চালায়। সরকারি সূত্রে খবর, পাকিস্তান হাইকমিশনে কড়া প্রতিবাদপত্র দাখিল করেছেন ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পাকিস্তান ডেস্কের যুগ্ম সচিব জে পি সিংহ।

গণমাধ্যমে প্রকাশ, একই ধরণের পাল্টা অভিযোগে ইসলামাবাদে নিযুক্ত ভারতীয় কূটনীতিকে সম্প্রতি দু’বার ডেকে পাঠিয়েছিল পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। বিনা প্ররোচনায় ভারতীয় ভূখণ্ডে হামলার অভিযোগ অস্বীকার করে ইসলামাবাদের পাল্টা দাবি, ভারতীয় সেনাই প্রথম গুলি চালায়।

গত শুক্রবারেই পাকিস্তানি বাহিনীর গোলাগুলি বর্ষণ ও মর্টার নিক্ষেপে প্রাণ হারিয়েছেন চার সেনা, বিএসএফের এক উপ-পরিদর্শক এবং ছয় বেসামরিক ব্যক্তিসহ মোট ১১ জন। ভারতীয় সেনাবাহিনীর দাবি, পাল্টা জবাবি হামলায় কমপক্ষে আট পাকিস্তানি সেনা নিহত হয়েছে। এছাড়া তাদের বহু ঘাঁটি ও অস্ত্রাগার ধ্বংস হয়েছে।

এদিকে রোববার বিএসএফের মহাপরিদর্শক রাজেশ মিশ্র বলেছেন, বেসামরিক লোকেদের সম্পদের ক্ষয়ক্ষতিসহ অনেক ক্ষতি হয়েছে। মানবাধিকার লঙ্ঘনের বিষয়টি উত্থাপন করা উচিত। গত ১৩ নভেম্বর শুক্রবার পাকিস্তানের পক্ষ থেকে একাধিক যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কাছে তার কোনও বার্তা রয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি ওই মন্তব্য করেন।

উৎস, পার্সটুডে

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img