রবিবার, ডিসেম্বর ৪, ২০২২

কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে হত্যার জেরে আমেরিকায় তুমুল দাঙ্গা; সেনা মোতায়েনে বাধ্য ট্রাম্প

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | আবিদ ইলাহী


আমেরিকার মিনিসোটিয়া শহরের মেনিয়াপলিসে পুলিশ কর্তৃক কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে হত্যার জেরে জনসাধারণ এবং পুলিশের মাঝে তুমুল দাঙ্গা চলছে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাহিরে চলে যাওয়ার আশঙ্কা করে ডোনাল্ড ট্রাম্প সেনাবাহিনীদের চারঘন্টার ভেতরে মেনিয়াপলিসের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের আওতায় আনার নির্দেশ দেন।

অনলাইন মেইল থেকে জানা যায়, ১৯৯২ সালের পর এটা দ্বিতীয়বার, সেনাবাহিনীদের কোনো শহরে মোতায়েন করা হয়েছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্যে।

১৯৯২ সালে রডরি কিং নামে এক ব্যাক্তি পুলিশের হাতে নির্মমভাবে হত্যা হয় লস এঞ্জেলেসে, এবং পুলিশ ও জনসাধারণের মাঝে তুমুল বিক্ষোভ শুরু হলে সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হয়েছিলো পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের আওতায় আনতে।

মেনিয়াপলিসে কার্ফিউ আরোপ করা হয়, তবে বিক্ষুব্ধ বিক্ষোভকারীরা কার্ফিউ লঙ্ঘন করে পুলিশের সাথে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়ে পরে, পুলিশের দিক থেকে বিক্ষোভকারীদের প্লাস্টিকের বুলেট এবং টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করা হচ্ছে।

এসময় ঊনিশ বছর বয়সের এক কিশোর গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয়। ধারণা করা হচ্ছে অজ্ঞাত হামলাকারীদের কেও এই হত্যাকাণ্ড করেছে, তবে এই কিশোরের হত্যার পর বিক্ষোভকারীদের বিক্ষোভ আরো তীব্র হচ্ছে।

উল্লেখ্য যে, জর্জ ফ্লয়েড নামে এক কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তি পুলিশি হেফাজতে মারা যায়। একজন অফিসার জর্জকে মাটিতে শুইতে তার ঘাড়ে হাটু দিয়ে রেখেছিলেন, যার ফলে জর্জের মৃত্যু হয়ে যায়।

সর্বশেষ খবর অনুযায়ী ৩০ টি স্টেটে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পরেছে। ১৬ টি স্টেটে কারফিউ জারি করেছে ট্রাম্প প্রশাসন।

সূত্র: ওয়াশিংটন পোস্ট

spot_img
spot_img

সর্বশেষ

spot_img