শনিবার, অক্টোবর ২৩, ২০২১

করোনা মোকাবেলায় সরকার ব্যর্থ: ড. খন্দকার মোশাররফ

সরকার করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতি মোকাবেলায় ব্যর্থ হয়েছে উল্লেখ করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, জনগণের সমর্থনে সরকার গঠন করতে পারলে বিএনপি স্বাস্থ্যখাতে মোট জিডিপির ৫ শতাংশের বেশি বরাদ্দ রাখবে। বিএনপি তৃণমূল থেকে স্বাস্থ্যখাতকে ঢেলে সাজাবে।

শনিবার (১৬ মে) বিএনপি আয়োজিত অনলাইন সংলাপ অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে ড. মোশাররফ এসব কথা বলেন। বিএনপির কমিউনিকেশনস সেলের প্রধান সম্পাদক সাবেক সংসদ সদস্য জহির উদ্দিন স্বপন এ অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন।

ড. মোশাররফ বলেন, জীবন প্রথম, বেঁচে থাকলে জীবিকা হবে। সামনে ঈদুল ফিতর। ঈদের কেনাকাটা করার ব্যাপারে উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই। সরকার লকডাউন শিথিল করলেও জীবনটা আমার আপনার। তাহলে কেন আমরা অবিচকের মতো কাজ করছি? তিনি সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সামাজিক দূরত্ব মেনে চলার আহবান জানান।

করোনা পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্য ব্যবস্থার দূরাবস্থার কথা তুলে ধরেন মোশাররফ বলেন, হাসপাতালগুলোতে রোগীরা সেবা পাচ্ছে না। সেখানে আইসিউ, ভেন্টিলেটর অক্সিজেন পর্যাপ্ত নেই। রোগীরা চিকিৎসা সেবা না পেয়ে হাসপাতাল ছেড়ে পালিয়ে যাচ্ছেন-এটা উদ্বেগের বিষয়।

তিনি বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাসহ আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতি মোকাবেলায় পরীক্ষা পরীক্ষা পরীক্ষা বলে জোর দিয়ে পরীক্ষার ওপর গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। আমরাও সরকারের কাছে দাবি জানিয়ে আসছি। এই পরীক্ষার ব্যাপারেও সরকারের ব্যর্থতা রয়েছে। ৪১ টি বুথে ১২ হাজার নমুনা পরীক্ষা করার সক্ষমতা থাকলেও তাও করতে পারছেনা সরকার।

সরকারের সাধারণ ছুটি ঘোষণার সিদ্ধান্তের সমালোচনা করে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে পাশের দেশ ভারতসহ পৃথিবীর অনেক দেশেই লকডাউন করেছে। কিন্তু আমাদের সরকার ঘোষণা করেছে সাধারণ ছুটি। লকডাউন ও সাধারণ ছুটি তো এক বিষয় নয়, অনেক পার্থক্য। এছাড়াও গার্মেন্টস শপিং মল খুলে দেওয়াসহ সরকারের সিদ্ধান্ত গ্রহণে দোদুল্যমানতা ছিল। যার কারণে স্বাস্থ্যবিধি কার্যকর হয়নি। এখান করোনা রোগীর সংখ্যা সীমিত পরীক্ষাও হাজার ছাড়িয়ে যাচ্ছে প্রতিদিন।

spot_img
spot_imgspot_img

সর্বশেষ

spot_img
spot_imgspot_img
spot_imgspot_img